• মে ২৭, ২০২৪ ১:৪৭ অপরাহ্ণ

কুড়িগ্রামে পুলিশের বহুমাত্রিক নিরাপত্তায় খুশি ভোটাররা

মে ৯, ২০২৪

স্টাফ রিপোর্টার:

কুড়িগ্রামের চিলমারী, রৌমারী ও রাজিবপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে পুলিশ নির্ভীকভাবে বয়স্ক, প্রতিবন্ধী ভোটারদের সহমর্মিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে প্রশংসায় ভাসছেন। নির্ভীক, নির্মোহ, পেশাদারিত্বের সাথে নিরপেক্ষ নির্বাচনী দায়িত্ব পালন করায় সাধারণ ভোটারদের প্রশংসায় ভাসছেন পুলিশ।

পুলিশ সুত্র জানায়, কুড়িগ্রামে প্রথম ধাপের ভোটগ্রহণ সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়ে বিকেল ৪টা পর্যন্ত নিরবিচ্ছিন্ন ভাবে কোন প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই সুশৃঙ্খল ভাবে সম্পন্ন হয়। নির্বাচনে জেলা পুলিশের প্রায় ৮০০ পুলিশ সদস্য চিলমারী, রৌমারী ও রাজিবপুরের প্রত্যন্ত চরাঞ্চলের বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রে দায়িত্ব পালন করেন। 

জেলা পুলিশ জানায়, কেন্দ্রে কেন্দ্রে ৩-৫ জন পুলিশ সদস্য, ৩-৪টি কেন্দ্র মিলে ১জন পুলিশ পরিদর্শকের নেতৃত্বে রোবাস্ট মোবাইল টিম, পুলিশ পরিদর্শকের নেতৃত্বে ক্লাস্টার কেন্দ্র ভিত্তিক স্মার্ট স্ট্রাইকিং টিম মোতায়েন সহ নির্বাচনী এলাকাকে ৫টি সেক্টরে ভাগ করে প্রত্যেক সেক্টরে একজন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বা সহকারী পুলিশ সুপারের নেতৃত্বে সাংগুইন সেক্টর পুলিশ টিম দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়াও থানাভিত্তিক মোতায়েন করা হয়েছিল পুলিশের স্পেশাল কুইক রেসপন্স টিম। 

অন্যদিকে দুর্গম এলাকায় জেলা পুলিশের নৌ টহল ও মোটরসাইকেল মোবাইল টিম দায়িত্ব পালন করে বিভিন্ন চর এলাকার ভোট কেন্দ্র গুলোতে।

রৌমারী উপজেলার নতুন বন্দর ভোট কেন্দ্রে ভোট দিতে এসেছেন রহিমা বেগম নামের এক বৃদ্ধা। তিনি বলেন, ভোট কেন্দ্রোত আসা দেখি মহিলা পুলিশ আসি আমাকে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে ভোটের রুমে পৌঁছায় দেয়। আমি পুলিশের এমন ব্যবহারে খুব খুশি হয়েছি।

রৌমারী উপজেলার মির্জা পাড়া ভোট কেন্দ্রে ভোট দিতে এসেছেন শারীরিক প্রতিবন্ধী রহমান আলী। তিনি বলেন, ভোট কেন্দ্রের বাহির থেকে দুইজন পুলিশ আসি আমাকে হাত ধরে নিয়ে রুমের ভিতর ঢুকিয়ে দেয়। পুলিশ খুব ভালো ব্যবহার করছে। আমার ভালো লাগছে। 

অপর দিকে কুড়িগ্রামের পুলিশ সুপার (এসপি) আল আসাদ মোঃ মাহফুজুল ইসলাম চিলমারী,  রৌমারী ও রাজিবপুর উপজেলার বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রের নিরাপত্তা তদারকি ও নির্বাচনী দায়িত্বে থাকা পুলিশ সদস্যদের সাথে ভোটকেন্দ্রের নিরাপত্তা বিষয়ে নির্দেশনা দেন, সম্মানিত ভোটারদের সাথেও কথা বলেন। 

এছাড়াও নির্বাচনের দিন সকাল থেকে রৌমারী, রাজিবপুর ও চিলমারীর বিভিন্ন ভোটকেন্দ্র পরিদর্শন ও নিরাপত্তা ডিউটিতে নিয়োজিত পুলিশ সদস্যদের ডিউটি তদারকি করেন এসপি।

কুড়িগ্রামের পুলিশ সুপার (এসপি) আল আসাদ মোঃ মাহফুজুল ইসলাম বলেন, আমাদের প্রায় ৮০০ পুলিশ সদস্য তিন উপজেলায় নির্বাচনে দায়িত্ব পালন করেন। কোথাও কোন বিশৃঙ্খলার খবর পাওয়া যায়নি। সুন্দর ও সুষ্ঠুভাবে ভোট গ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে।