• মঙ্গল. অক্টো ২০, ২০২০

নালিতাবাড়ীতে আমন ধান ক্ষেতে ইদুরের আক্রমন-দিশেহারা কৃষক

সেপ্টে ২২, ২০২০

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে আমন ধান ক্ষেতে ইদুরের আক্রমণ শুরু হয়েছে। ইদুরের আক্রমনে কৃষককুল দিশেহারা হয়ে পড়েছে।

এলাকার কৃষক সূত্রে জানা গেছে, আমান আবাদের পর ধান গাছ এখন বাড়তে শুরু করেছে। এমন সময় নরম কচি ধান গাছের সু গন্ধে ইঁদুর মুহুর্তে ধান গাছ কেটে ফেলতে পারে বিধায় ইঁদুর সহজেই ক্ষেতের পর ক্ষেত বহু ধান গাছ কেটে সাবার করে ফেলছে। আমান ধানের বাড়ন্তের এই সময়ে ধান ক্ষেতে পর্যাপ্ত পানি থাকা সত্বেও ইদুরের আক্রমনে আবাদকৃত ধান ক্ষেতে ধান গাছের গোড়া কেটে দিয়ে ধান গাছ কেটে ফেলছে এবং ধান গাছ লালটি হয়ে বিবর্ন আকার ধারন করেছে। অনেক টাকা খরচ করে সার বিষ দিয়েও ধান গাছ রক্ষ করা যাচ্ছে না। ফলে দিশেহারা হয়ে পড়েছে এলাকার কৃষকগন।

এব্যাপারে কৃষক আবদুস সামাদ বলেন, আমি এবার রুপাকুড়া, দুধকুড়া, হাতিপাগাড়সহ গ্রামগুলিতে ১৫একর আমান ধান আবাদ করেছি। এসব ধান ক্ষেতে ইঁদুর আক্রমণ করে ধান গাছ কেটে দিয়ে আবাদকৃত ক্ষেত সাবার করে ফেলছে। এ পর্যন্ত সবই ঠিকঠাক ছিল। ক্ষেতে পানি থাকা সত্বেও এই ধরনের ্ইদুরের আক্রমণ আমাদের সমস্ত অর্জন নষ্ট করে ফেলছে। এত টাকা খরচ করে আবাদ করে এখন ইদুরের কারণে যদি ফসল শেষ হয়ে যায় তাহলে আর আমাদের রক্ষা নেই।
কৃষক হযরত আলী বলেন, আমি ১৫ কাঠা জমি আবাদ করেছি। আমার ক্ষেতেও ইঁদুর আক্রমণ করেছে। এই জমির আবাদ দিয়েই আমি সারা বছরের খোড়াক করি। এখন এই ইদুরের কারণে আবাদ নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।
উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ আলমগীর কবির বলেন, আমি বিষয়টি শুনলাম। আমি সরজমিনে যাবো।