• রবি. জুলা ৩, ২০২২

নিখোঁজের তিনদিন পর নদী থেকে কৃষকের মরদেহ উদ্ধার

এপ্রি ২, ২০২২

কুড়িগ্রামে ধরলা নদীর চরে গরুকে ঘাস খাওয়াতে গিয়ে নিখোঁজ আজগার আলী (৬০) এর মরদেহ তিনদিন পর উদ্ধার করা হয়েছে। শনিবার (২এপ্রিল) দুপুরে ধরলা নদীতে চর ভেলাকোপা নামক স্থান থেকে ওই ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত ব্যক্তি সদর উপজেলার পাঁচগাছী ইউনিয়নের উত্তর নওয়াবশ গ্রামের মৃত: চৌধুরী মুন্সির পূত্র।
কুড়িগ্রাম সদর থানার অফিসার ইনচার্জ খান মো. শাহরিয়ার জানান, মৃত: আজগার আলী ১২টি গরু নিয়ে চর ভেলাকোপায় ঘাস খাওয়াতে যান। বিকেলে গরুগুলো ফিরে আসলেও আজগার আলী আর ফিরে না আসাতে পরিবার থেকে কুড়িগ্রাম সদর সাধারণ ডায়রি করা হয়। পরে কুড়িগ্রাম ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স টিম ধরলা নদীতে অনেক তল্লাসী চালিয়েও নিখোঁজের কোন সন্ধান পায়নি। শনিবার (২এপ্রিল) দুপুরে স্থানীয়রা আজগার আলীর মরদেহ নদীতে ভাসতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। বর্তমানে নিহত আজগার আলীর মরদেহের সুরৎহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য কুড়িগ্রাম মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।
নিহত আজগার আলীর ছেলে আজিজুল হক জানান, আমার বাবা গত বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে বাড়ী থেকে গরুকে ঘাস খাওয়ানোর জন্য বাড়ীর পাশে ধরলা নদীতে ভেলাকোপা চরে যান। পরে ১২টি গরু বাড়ীতে ফিরে আসলেও বাবা আর ফিরে আসেনি। আমরা চারদিকে খোঁজখবর করেও তার কোন সন্ধান পাইনি। পরে কুড়িগ্রাম সদর থানায় একটি নিখোঁজ ডায়রী করা হয়। শনিবার (২এপ্রিল) দুপুরে ধরলা নদীতে বাবার মৃতদেহ ভেসে উঠতে দেখে স্থানীয়রা খবর দিলে বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়। দুপুরে বাবার মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।